ব্রাহ্মণবাড়িয়ায় কোটা সংস্কার ও কর্মসংস্থানের দাবিতে বিক্ষোভ মিছিল ও অবস্থান কর্মসূচি

কোটা সংস্কার ও মেধাবীদের কর্মসংস্থানের দাবিতে ব্রাহ্মণবাড়িয়ায় বিক্ষোভ মিছিল ও অবস্থান কর্মসূচি পালন করেছেন সাধারণ শিক্ষার্থীরা।

বুধবার (১০ জুলাই) সারাদিন ‘বৈষম্য বিরোধী ছাত্র আন্দোলনের’ ব্যানারে এবং সাধারণ শিক্ষার্থীদের অংশ গ্রহণে ব্রাহ্মণবাড়িয়া সরকারি কলেজের সামনে থেকে বিক্ষোভ মিছিল শুরু হয়। পরে শহরের প্রধান প্রধান সড়ক প্রদক্ষিণ করে ব্রাহ্মণবাড়িয়া প্রেসক্লাবের সামনে এসে অবস্থান কর্মসূচি পালন করেন তারা।

এ সময় তারা স্লোগান দেন কোটা না মেধা, মেধা-মেধা। আমরা আছি থাকবো যুগে-যুগে লড়বে। আমরা সোনার বাংলায় বৈষম্যের ঠাঁই নাই। মুক্তিযুদ্ধের বাংলায় বৈষম্যের ঠাঁই নাই। বঙ্গবন্ধুর বাংলায় বৈষম্যের ঠাঁই নাইসহ বিভিন্ন স্লোগান দেন।

পরে প্রেসক্লাবের সামনে এসে অবস্থান নেন। এ সময় তারা কোটা সংস্কারের পক্ষে তাদের যৌক্তিক দাবিগুলো তুলে ধরেন।

ব্রাহ্মণবাড়িয়া সরকারি কলেজের শিক্ষার্থী শাহ আলম পালোয়ান বলেন, ‘মুক্তিযোদ্ধার নাতি নাতনিরা নাম ভাঙিয়ে কোটার কথা বলে আমাদের হয়রানি করা হচ্ছে। আমরা কোটা বা সরকারের বিরুদ্ধে নই। আমরা চাই, কোটা সংস্কার করে ৫ ভাগে নামিয়ে আনা হোক। যদি আমাদের দাবি সরকার মেনে না নেয়, তাহলে আন্দোলন চলবে।’

জাহিদ হোসেন নামে আরেক আন্দোলনকারী শিক্ষার্থী বলেন, ‘একটা দেশে ৫৬ ভাগ কোটা রেখে মানুষ কখনো অগ্রসর হতে পারে না। যারা অনগ্রসর তাদেরকে সুযোগ দেয়া হোক। আমাদের বাধা নেই। তবে সেটা কমিয়ে আনা হোক। মেধাবীদের সুযোগ দেয়া হোক। সেটাই আমাদের দাবি।’

See also  বিদ্যালয় ভিত্তিক বিজ্ঞান ক্লাবসমূহ টেকসই করণে প্রতিষ্ঠানিক উদ্যোগ' শীর্ষক সেমিনার অনুষ্ঠিত
Skip to toolbar